বৃহস্পতিবার, আগস্ট ১৮, ২০২২
21.7 C
Toronto

Latest Posts

বাংলাদেশ হাইকমিশনারের সম্মানে বিজনেস চেম্বার অব কানাডার ‘মিট এন্ড গ্রীট’

- Advertisement -
ডিরেক্টরদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মোহাম্মদ আলমগীর, আবুল মনসুর, এমডি নূর ই শহীদ রানা, শহিদুল ইসলাম মিন্টু ও তপন সাইয়েদ

বাংলাদেশ বিজনেস চেম্বার অব কানাডার উদ্যোগে গত ১৪ জুলাই স্থানীয় প্রিমিয়াম সুইটস কমপ্লেক্সে কানাডাস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশনার ড. খলিলুর রহমানের সম্মানে ‘মিট এন্ড গ্রীট’ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এই আয়োজনে সভাপতিত্ব করেন চেম্বার সভাপতি এইচ এম ইকবাল। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন টরন্টোস্থ বাংলাদেশ কনস্যুলার লুৎফর রহমান। সঞ্চালনায় ছিলেন চেম্বার ডিরেক্টর এ্যাডমিন মোহাম্মদ হাসান। অনুষ্ঠানের শুরুতে বাংলাদেশ বিজনেস চেম্বার অব কানাডার ডিরেক্টদের পরিচয় করিয়ে দেয়া হয়। ডিরেক্টরদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মোহাম্মদ আলমগীর, আবুল মনসুর, এমডি নূর ই শহীদ রানা, শহিদুল ইসলাম মিন্টু ও তপন সাইয়েদ।

কানাডাস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশনার ড. খলিলুর রহমান প্রধান অতিথির ভাষণে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। বিশ্ব দরবারে বাংলাদেশের একটি উজ্জ্বল ভাবমূর্তি প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। পদ্মা সেতু এখন আর স্বপ্ন নয়, বিস্ময়। আপনারা একেকজন বাংলাদেশের প্রকৃত এ্যাম্বাসাডার। আপনাদের কাছে বাংলাদেশের অনেক প্রত্যাশা।

- Advertisement -

ড. খলিলুর রহমান আরো বলেন, অতীতে এই চেম্বারের অনেক উদ্যোগ প্রশংসিত হয়েছে। বিশেষ করে রানা প্লাজার ঘটনার সময় এই চেম্বার যে অসাধ্যগুলো সাধন করেছে এই জন্যে আমি ধন্যবাদ জানাই। আমি আশা করবো চেম্বার আরো শক্তিশালী হবে এবং বাংলাদেশের স্বার্থে কাজ করবে।

টরন্টোস্থ বাংলাদেশ কনস্যুলার লুৎফর রহমান বলেন, চেম্বারের সকল কাজে টরন্টো কনস্যুলার অফিস পাশে থাকবে এবং সহযোগিতা করবে। কানাডা-বাংলাদেশের মধ্যকার বাণিজ্যিক সম্পর্ক উন্নয়নে এই চেম্বার কাজ করে যাবে আমি বিশ্বাস করি।
সর্বশেষ নৈশভোজের মাধ্যমে এই আয়োজনের সমাপ্তি ঘটে।

 

- Advertisement -

Latest Posts

Don't Miss

Stay in touch

To be updated with all the latest news, offers and special announcements.