শনিবার, মার্চ ২, ২০২৪
4.9 C
Toronto

Latest Posts

নিউক্লিয়ার দুর্ঘটনা পরবর্তী যে সহায়তা করেছিলেন জিমি কার্টার

- Advertisement -
মার্কিন প্রেসিডেন্ট হওয়া জিমি কার্টার ব্যাপক তেজস্ক্রিয়তার মধ্যেও রিঅ্যাক্টরের যন্ত্রাংশ খুলতে সহায়তা করেছিলেন

সেটা ছিল ১৯৫২ সালের ডিসেম্বর। শীতল যুদ্ধ চলছে এবং অন্টারিওর গ্রামাঞ্চলে একটি নিউক্লিয়ার রিঅ্যাক্টরে দুর্ঘটনা ঘটে। সেটাই ছিল বিশে^র প্রথম বড় ধরনের রিঅ্যাক্টর দুর্ঘটনা।

অটোয়ার ২০০ কিলোমিটার উত্তরে পরীক্ষামূলক চক রিভার নিউক্লিয়ার ল্যাবরেটরির আংশিক ওই মেল্টডাউন পরবর্তীতে রিঅ্যাক্টরের নিরাপত্তা ও নকশায় নতুন যুগ এনে দেয়। ৭০ বছরেরও বেশি সময় আগের ওই ঘটনা তরুণ এক মার্কিন নেভী অফিসারের কথাও স্মরণ করে দেয়। পরবর্তীতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট হওয়া জিমি কার্টার ব্যাপক তেজস্ক্রিয়তার মধ্যেও রিঅ্যাক্টরের যন্ত্রাংশ খুলতে সহায়তা করেছিলেন।
যুক্তরাষ্ট্রের ৩৯তম প্রেসিডেন্ট জিমি কার্টার সে সময় ছিলেন লেফটেন্যান্ট আর্ল কার্টার জুনিয়র, ২৮ বছর বয়সী এক কর্মকর্তা। ওই দুর্ঘটনার পর একটি দল নিয়ে সেখানে এসেছিলেন কার্টার।

- Advertisement -

নিজ বাড়িতে সম্প্রতি হসপিস কেয়ার সেবা চালু করেছেন ৯৮ বছর বয়সী কার্টার। সেখানেই নানা স্মৃতির মধ্য থেকে ওই স্মৃতিটিও উঠে আসে। চক রিভারের ওই ঘটনা আন্তর্জাতিক নিউক্লিয়ার ইতিহাসের গুরুত্বপূর্ণ অংশ হয়ে যাচ্ছে। চক রিভারের রিঅ্যাক্টর সেফটি প্রকৌশলী ও সোসাইটি অব দ্য কানাডা’র নিউক্লিয়ার হেরিটেজের প্রেসিডেন্ট মরগান ব্রাউন সম্প্রতি বলেন, মার্কিন সহায়তাটি ছিল খুবই মূল্যবান। ব্যক্তিগতভাবে আমি ওই দলটি, যারা এখানে এসেছিল তাদের কাছে খুবই কৃতজ্ঞ।

দুর্ঘটনাটি ঘটেছিল ১৯৫২ সালের ১২ ডিসেম্বর। ১৯৭৫ সালে লেখা আত্মজীবনীতে কার্টার উল্লেখ করেন নিউক্লিয়ার রিঅ্যাক্টরের যন্ত্রাংশ আলাদা করার কাজে নিয়োজিত দলটির কীভাবে অংশ হয়েছিলেন তিনি। সাদা প্রোটেক্টিভ ইকুইপমেন্ট পরে ৯০ সেকেন্ডের শিফটে কাজ করতে হয়েছিল তাদের। মূল ফ্যাসিলিটিতে যাওয়ার আগে তারা পাশেই নির্মিত একটি রিঅ্যাক্টরের রেপ্লিকায় অনুশীলতন করে নেন।

আত্মজীবনীতে কার্টার লিখেছেন, ওই ঘটনার পরবর্তী কোনো প্রভাব কার্যত দেখা যায়নি। এই সহায়তা ছিল কানাডা ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যকার ঘনিষ্ঠ সম্পর্কের ইঙ্গিত। ১৯৮০ সালে প্রেসিডেন্ট থাকাকালেও আরানি বন্দি সংকটের সময় দেখেছিলেন তিনি।

ব্রাউন বলেন, নথিপত্র অনুযায়ী, যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক কর্মকর্তারা সেখানে পৌঁছেছিলেন দুর্ঘটনার বেশ কয়েক সপ্তাহ পর। দুর্ঘটনার পর দূষণ ছড়াতে পারতো। উচ্চ তেজস্ক্রিয়তার একটা ক্ষেত্রও তৈরি হতে পারতো। এ কারণেই কম সময়ের জন্য সেখানে গিয়ে কাজ করতে হয়েছিল তাদের।

যে ১৫০ মার্কিন সামরিক কর্মকর্তা, ফ্যাসিলিটর ৮৬০ জন কর্মী, ১৭০ জন কানাডিয়ান সামরিক কর্মকর্তা ও ২০ জন নির্মাণ ঠিকাদার সেখানে কাজ করেছিলেন কার্টার ছিলেন তাদের একজন।

 

- Advertisement -

Latest Posts

Don't Miss

Stay in touch

To be updated with all the latest news, offers and special announcements.