সোমবার, অক্টোবর ৩, ২০২২
5.2 C
Toronto

Latest Posts

বাড়ির দাম আর কত কমবে?

- Advertisement -
ছবি/ইয়ান ম্যাকডোনাল্ড

কানাডায় বাড়ির ঐতিহাসিক মূল্য সংশোধন শুরু হয়েছে। সবচেয়ে ব্যয়বহুল অন্টারিও এবং ব্রিটিশ কলাম্বিয়ার আবাসন বাজার এর কেন্দ্রবিন্দু হতে পারে। আরবিসির নতুন এক প্রতিবেদনে এমনটাই বলা হয়েছে।

মহামারির সময় গ্রেটার টরন্টো এরিয়াতে (জিটিএ) বাড়ির দাম বাড়তে শুরু করে এবং ফেব্রুয়ারিতে এক বছর আগের তুলনায় প্রায় ৩৬ শতাংশ বৃদ্ধি পায়। কিন্তু ব্যাংক অব কানাডার আগ্রাসী সুদের হার বৃদ্ধি আবাসন বাজারের ওপর প্রভাব ফেলে এবং টানা চার মাস ধরে বাড়ির দাম কমছে।
আরবিসি তাদের সাম্প্রতিক প্রতিবেদনে বলেছে, ফেব্রুয়ারি থেকে আগামী বছরের শুরুর দিক পর্যন্ত কানাডাজুড়ে বাড়ির দাম প্রায় ১২ শতাংশ কমবে বলে প্রত্যাশা করা হচ্ছে। সত্যিই যদি সেটা হয়ে থাকে তাহলে তা হবে গত পাঁচটি জাতীয় মন্দার মধ্যে সবচেয়ে বেশি মূল্য সংশোধন।
বাজারের ওপর নির্ভর করে মূল্য সংশোধন বিভিন্নভাবে কাজ করবে বলে জানিয়েছে ব্যাংকটি। তারা বলছে, আলবার্টা ও সাস্কেচুয়ান বাড়ির দাম ৫ শতাংশ হারে কমতে পারে। তবে বাকি অধিকাংশ প্রদেশে কমবে ৫ থেকে ৮ শতাংশ হারে।

- Advertisement -

ব্যাংক বলছে, অন্টারিও এবং ব্রিটিশ কলাম্বিয়ার মতো উচ্চ মূল্যের বাজারের ক্রেতারা ব্যাংকের সুদের হারের প্রতি বিশেষভাবে সংবেদনশীল থাকবেন এবং তাদের বেশিরভাগই এই বাজারের বাইরে চলে যাবেন। যার ফলে এইসব বাজারে আরও তাৎপর্যপূর্ণ মূল্য সংশোধন দেখা যাবে।

আরবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ব্রিটিশ কলাম্বিয়া ও অন্টারিওতে বাড়ি পুনর্বিক্রয় ২০২২ ও ২০২৩ সালে সামগ্রিকভাবে যথাক্রমে ৪৫ ও ৩৮ শতাংশ হ্রাস পাবে। এর ফলে হোম প্রাইস ইনডেক্স ১৪ শতাংশ কমবে। মন্দার তীব্রতা ১৯৯০ এর দশকের গোড়ার দিককার মতোই হবে, যখন অন্টারিওতে বাড়ি পুনর্বিক্রয় ৪১ শতাংশ এবং মূল্য ১৫ শতাংশ হ্রাস পেয়েছিল। তবে ব্রিটিশ কলাম্বিয়ায় ১৯৮০ এর দশকের গোড়ার দিককার চেয়ে এবারের মন্দার তীব্রতা কম থাকে। ওই সময় ব্রিটিশ কলাম্বিয়া বাড়ি পুনর্বিক্রয় ৬২ শতাংশ এবং মূল্য ২৭ শতাংশ কমে গিয়েছিল।

মূল্যস্ফীতির রাশ টানতে ব্যাংক অব কানাডা গত কয়েক মাসে নীতি নির্ধারণী সুদের হার দশমিক ২৫ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ২ দশমিক ৫ শতাংশে উন্নীত করেছে। প্রয়োজন হলে সুদের হার আরও বাড়ানো হবে বলেও সতর্ক করে দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

আরবিসি তাদের প্রতিবেদনে বলেছে, অক্টোবরের মধ্যেই সুদের হার ৩ দশমিক ২৫ শতাংশ পৌঁছে যাবে বলে ধারণা করা হচ্ছে। তবে আবাসন বাজার ভেঙে পড়বে না বলে পূর্বাভাস দিয়েছেন আরবিসির অর্থনীতিবিদ রবার্ট হগ।

 

- Advertisement -

Latest Posts

Don't Miss

Stay in touch

To be updated with all the latest news, offers and special announcements.