মঙ্গলবার, জুন ১৮, ২০২৪
30 C
Toronto

Latest Posts

২০২৪ সালে খাবারের জন্য আকর্ষণীয় স্থান টরন্টো

- Advertisement -
টরন্টোর বিখ্যাত ব্লুরের উত্তরে ইটালিয়ান-এস্কু স্যান্ডউইচের জন্য বিখ্যাত গ্র্যান্ডমা লাভস ইউ

২০২৪ সালে কানাডায় খাবারের জন্য বিখ্যাত শীর্ষ ১০০ তালিকায় টরন্টোর রেস্তোরাঁগুলোর যে আধিপত্য থাকবে টরন্টোর খাদ্যপ্রেমিকদের কাছে তা অবাক করার মতো বিষয় নয়। তালিকায় ১০০ রেস্তোরাঁর মধ্যে ২০টিই টরন্টোর। ১৪টি রেস্তোরাঁ নিয়ে তালিকায় দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রেস্তোরাঁ মন্ট্রিয়লের। তৃতীয় স্থানে ভ্যানকুভারের রেস্তোরাঁ আছে তালিকায় ১১টি।

শীর্ষস্থানীয় কোন রেস্তোরাঁতে খাবারের স্বাদ নেওয়া যায় সেটা যদি ভাবেন তাহলে প্রথমেই আসবে টরন্টোর শেন শেন ন্যাশভিল হট চিকেনের নাম। ফ্রায়েড চিকেন স্যান্ডউইচের জন্য বিখ্যাত রেস্তোরাঁটির অবস্থান ডাউনটাউনের কেন্দ্রস্থলে কুইন স্ট্রিট ওয়েস্টে। ন্যাশভিল নিয়ে খারাপ রিভিউ খুঁজে পাওয়া কঠিন।

- Advertisement -

এর পরে আছে টরন্টোর বিখ্যাত ব্লুরের উত্তরে ইটালিয়ান-এস্কু স্যান্ডউইচের জন্য বিখ্যাত গ্র্যান্ডমা লাভস ইউ-এর নাম। সার্বিক তালিকায় রেস্তোরাঁটির অবস্থান চতুর্থ। তালিকায় দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থানে আছে যথাক্রমে মন্ট্রিয়লের বুভেট স্কট এবং ভ্যানকুভারের মানুশ’এহ লেবানিজ মেডিটেরেনিয়ান ফুড।

তালিকা অনুযায়ী, এ বছর জনপ্রিয়তায় এগিয়ে আছে ব্রেকফাস্ট এবং ব্রাঞ্চ ফুড।

র‌্যাংকিংয়ে ২০তম স্থানে রয়েছে অন্টারিওর সেন্ট ক্যাথরিন্সে অবস্থিত দ্য ডিনার হাউস ২৯। কানাডিয়ানদের মধ্যে জনপ্রিয় অন্য খাবারের মধ্যে রয়েছে মিডল ইস্টার্ন। এ ধরনের খাবারের সাতটি রেস্তোরাঁ তালিকায় স্থান করে নিয়েছে। ভারতীয় খাবারের রেস্তোরাঁ রয়েছে তালিকায় পাঁচটি। জনপ্রিয়তার ক্রমানুসারে তালিকায় ১০০ রেস্তোরাঁ হলো-
টরন্টোর শেন শেন’স ন্যাশভিল হট চিকেন, কুইবেক সিটির বুভেট স্কট, ভ্যানকুভারের মানুশ’এহ, টরন্টোর গ্র্যান্ডমা লাভস ইউ, টরন্টোর নিউ অরলিন্স সিফুড অ্যান্ড স্টেকহাউস, হুইসলারের দ্য রিমরক ক্যাফে, মন্ট্রিয়লের বার্গার বার ক্রিসেন্ট, ভনের ইয়োকাই ইজাকাইয়া, মন্ট্রিয়লের ডামাস, মারখামের বিগ ট্রায়ো ওন্টন নুডল, উডব্রিজের সাউথইস্ট স্যান্ডউইচ, ভ্যানকুভারের নাম্বার ই ফুড, ক্যালগেরির মিনাস ব্রাজিলিয়ান স্টেকহাউস, ভ্যানকুভারের দ্য নর্দার্ন ক্যাফে অ্যান্ড গ্রিল, ক্যালগেরির দ্য হিমালয়ান, থর্নহিলের ফেরোভিয়া রিস্টোরান্টে, ভ্যানকুভারের টম সুশি, মন্ট্রিয়লের বুইলন বিল্ক, টরন্টোর জিল বার্গারস, সেন্ট ক্যাথারিন্সের দ্য ডিনার হাউস ২৯, ক্যালগেরির টেন ফুট হেনরি, নায়াগ্রা ফলসের ভাইনকেলার, নর্থ ভ্যানকুভারের পবন ইন্ডিয়ান কিচেন, রিচমন্ডের লামাজুন, টরন্টোর মম হাট অ্যান্ড গার্ডেন্স, নর্থ ভ্যানকুভারের মনিগ্রাম কফি রোস্টার্স ও ওয়ার্কশপ ভেজিটেরিয়ান ক্যাফে, কুইবেক সিটির লা ক্যাফে ডু ক্লোচার পেনশে, ভাইল ডি কুইবেকের বিক্লাব বিস্ট্রো-বার, নায়াগ্রা ফলসের টাইড অ্যান্ড ভাইন ওয়েস্টার হাউস, মিসিসোগার পো এনগক ইয়েন রেস্টুরেন্ট, হুইসলারের রেড ডোর বিস্ট্রো, পেম্বারটনের মাইল ওয়ান ইটিং হাউস, এডমন্টনের দি বেডনুইন্স ও ইটালিয়ান সেন্টার শপ, শার্লের শার্লে ডেলিসিয়াস ক্যাফে, কুইবেক সিটির লা’অ্যাফেয়ার ইস্ট কেচাপ, টরন্টোর গুরুমে সুশি, উইনিপেগের ক্লেমেন্টাইন, ভিক্টোরিয়ার ফিশহুক, মন্ট্রিয়লের ক্যাফে লুলু, এডমন্টনের পদ্মানদী ভেজিটেরিয়ান রেস্টুরেন্ট, মন্ট্রিয়লের মনার্ক, ক্যালগেরির মাদ্রাস ক্যাফে, টরন্টোর মিস্টিক মাফিন ও হার ফাদার’স সিডার বার অ্যান্ড কিচেন, নিউমার্কেটের চিপ+মল্ট, ভিক্টোরিয়ার রেড ফিশ ব্লু ফিশ, কুইবেক সিটির লা সেইন্ট-আমর, ক্যালগেরির বিগ ক্যাচ সুশি, অটোয়ার ডি রিয়েনজো’স, ভিক্টোরিয়ার জ্যাম ক্যাফে, ভ্যানকুভারের আনালেনা, টরন্টোর মামাজন আর্মেনিয়া পিজ্জেরিয়া ও স্কারামোশ রেস্টুরেন্ট পাস্টা বার অ্যান্ড গ্রিল, মঙ্কটনের সিন্টা রিয়া মালয়েশিয়ান রেস্টুরেন্ট, কুইবেক সিটির ল’রিজিন, টরন্টোর ইয়াসু, মন্ট্রিয়লের লা ফিঙ্কা, ভ্যানকুভারের আবসিন্থে বিস্ট্রো, টরন্টোর আলো রেস্টেুরেন্ট, লাচিনের ফালাফেল স্ট্রিট-জ্যাকস, ভ্যানকুভারের মাজাহর লেবানিজ কিচেন ও হ্যাপি নুডল হাউস, স্কারবোরোর ওয়ান২¯œ্যাকস, মন্ট্রিয়লের পেগাসে, টরন্টোর ক্যাফে ওরো ডি ন্যাপোলি ওফ্যাট নিনজা বাইট, মন্ট্রিয়লের মা পাওলে মৌলি, কেলোনার লিটল হোবো সুপ অ্যান্ড স্যান্ডউইচ শপ, টরন্টোর ডিসেন্ডেন্ট ডেট্রয়িট স্টাইল পিজ্জা, বানফের ব্লক কিচেন+ব্লার, টরন্টোর নম নম নম পোটিন, ড্রামোন্ডভিলের রোজ ক্যাফে, অটোয়ার সাপ্লাই অ্যান্ড ডিমান্ড, মন্ট্রিয়লের রেজিন ক্যাফে, ভ্যানকুভারের চিউই’স চিকেন অ্যান্ড বিসকিটস, কুইবেক সিটির সিসিও ক্যাফে, ওয়াটারলুর ভিনসেঞ্জো’স, টরন্টোর রিচমন্ড স্টেশন, নানাইমোর আস্টারা’স গ্রিক ট্যাভারনা, জ্যাস্পারের দি র‌্যাভেন বিস্ট্রো, স্কুয়ামিশের সাশা ইটারি, টরন্টোর রিক্কি টিক্কি, মন্ট্রিয়লের ক্যাডেট, ভ্যানকুভারের দি রেড অ্যাকর্ডিয়ন, রিচমন্ডের আনার পার্সিয়ান কুইজিন, মন্ট্রিয়লের রেস্টুরেন্ট বোনাপার্ট, টরন্টোর ব্যারেট্টো ক্যাফে, ভ্যানকুভারের সুশি জিন, ভনের পিটা গোল্ডেন পকেট ও ইম থাই কিচেন, কোভহেডের রিচার্ড’স ফ্রেশ সিফুড, নর্থ ভ্যানকুভারের টুর ডি ফিস্ট, মন্ট্রিয়লের লা মাস্কাডিন, মিসিসোগার আনসিলা’স ইন্ডিয়ান কুইজিন, উডব্রিজের মেমফিস বিবিকিউ, মন্ট্রিয়লের এল ফ্লোতান্তে, এয়াড্রির মিলো স্টোন গ্রিল অ্যান্ড সুশি এবং মন্ট্রিয়লের লা’অ্যাভেনিউ।

- Advertisement -

Latest Posts

Don't Miss

Stay in touch

To be updated with all the latest news, offers and special announcements.