বৃহস্পতিবার, আগস্ট ১৮, ২০২২
27.2 C
Toronto

Latest Posts

প্রখ্যাত চলচ্চিত্র পরিচালক আজিজুর রহমানের মৃত্যুতে দোয়া মাহফিল

- Advertisement -

প্রখ্যাত চলচ্চিত্র পরিচালক ও বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির আজীবন সদস্য আজিজুর রহমানের মৃত্যুতে পিকারিংয়ের বাসভবনে গত ২৩ জুলাই শনিবার দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়। এই মাহফিলে গ্রেটার টরন্টোর বাংলাদেশি কমিউনিটির বিশিষ্টজন যোগ দেন। মরহুমের রুহের মাগফেরাত কামনা করে বেশ কয়েকজন স্মৃতিচারণও করেন। তার কন্যা বিশিষ্ট নৃত্যশিল্পী আলিয়া রহমান বিন্দি ও ছেলে সাইদুর রহমান টয় এই আয়োজনে উপস্থিত হবার জন্যে সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

- Advertisement -

গত ১৪ মার্চ সোমবার টরন্টোতে শেষ নি:শ্বাস ত্যাগ করেন প্রখ্যাত এই পরিচালক। দীর্ঘদিন ধরেই তিনি ফুসফুসের সমস্যায় ভুগছিলেন। ফুসফুসে পানি চলে আসায় কানাডার টরেন্টোর একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

বাংলাদেশের বগুড়ার আদমদীঘিতে ছুটির ঘণ্টা’খ্যাত এই নির্মাতার দাফন সম্পন্ন হয়। উপজেলার সান্তাহার পৌর শহরের সাঁতাহার ঈদগাহ মাঠে জানাযা শেষে পরে তাকে ওছিয়ত অনুযায়ী পারিবারিক গোরস্থানে মায়ের কবরে দাফন করা হয়।

উল্লেখ্য, আজিজুর রহমান ১৯৩৯ সালের ১০ অক্টোবর বগুড়ার সান্তাহার রেলওয়ে জংশন শহরে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতার নাম রুপচাঁন প্রামানিক। তিনি স্থানীয় আহসানুল্লাহ ইনস্টিটিউট থেকে এসএসসি পাস ও ঢাকা সিটি নাইট কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করেছেন। চারুকলা আর্ট ইনস্টিটিউটে কমার্সিয়াল আর্টে ডিপ্লোমা করেছেন।

অনেক সফল চলচ্চিত্রের পরিচালক আজিজুর রহমান। ১৯৫৮ সালে ‘এ দেশ তোমার আমার’ চলচ্চিত্রে এহতেশামের সহকারী হিসেবে ক্যারিয়ার শুরু করেন। তার নির্মিত প্রথম চলচ্চিত্র ময়মনসিংহের লোককথা নিয়ে ‘সাইফুল মূলক বদিউজ্জামান’। মুক্তি পায় ১৯৬৭ সালে। এখন পর্যন্ত তিনি ৫৪টি চলচ্চিত্র নির্মাণ করেছেন। এগুলোর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো- ‘ছুটির ঘণ্টা’, ‘অশিক্ষিত’, ‘মাটির ঘর’, ‘জনতা এক্সপ্রেস’, ‘সাম্পানওয়ালা’, ‘ডাক্তার বাড়ি’, ‘গরমিল’ ও ‘সমাধান’ ইত্যাদি।

- Advertisement -

Latest Posts

Don't Miss

Stay in touch

To be updated with all the latest news, offers and special announcements.