রবিবার, ১১ এপ্রিল ২০২১, ১:১২ am

অন্টারিওর স্কুলে মার্চের ছুটি পিছিয়ে যাচ্ছে

অন্টারিওর স্কুলে মার্চের ছুটি পিছিয়ে যাচ্ছে

অন্টারিওর শিক্ষামন্ত্রী স্টিফেন ল্যাচে...ছবি/ ক্রিস্টোফার কাটসারভ, দ্য কানাডিয়ান প্রেস

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মার্চে যে ছুটি (মার্চ ব্রেক) থাকে তা এক মাস পেছানোর ঘোষণা দিয়েছে অন্টারিও সরকার। শিক্ষার্থীদের স্কুলে ধরে রাখা ও প্রদেশে করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্টের সংক্রমণ হ্রাসে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। 

কুইন’স পার্কে ১১ ফেব্রুয়ারি শিক্ষামন্ত্রী স্টিফেন ল্যাচে বলেন, ১৫ মার্চ শুরু হওয়া সপ্তাহের পরিবর্তে ১২ এপ্রিল শুরু হওয়া সপ্তাহে অন্টারিওর শিক্ষার্থী ও শিক্ষকরা ছুটি কাটাতে পারবেন। মার্চ ব্রেক স্থগিতের সিদ্ধান্ত নেওয়াটা আমাদের জন্য সহজ ছিল না। কিন্তু অন্টারিওর পরিবারগুলোকে নিরাপদ রাখাটা এখন সবচেয়ে বেশি জরুরি। এই কঠিন সময়ে শিক্ষার্থীদের স্কুলে এসে পাঠ গ্রহণকে বাধাগ্রস্ত হওয়া থেকেও রক্ষা করবে সিদ্ধান্তটি। ভ্রমণ ও বাড়ির বাইরে জড়ো না হওয়ার জন্য জনগণকে যে উৎসাহ দেওয়া হয়েছে মার্চ ব্রেক পিছিয়ে দেওয়াকে তার অংশও বলা যেতে পারে।

ছুটির পর দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা বাড়তে থাকায় অন্টারিওর স্কুলগুলোতে এতোদিন কেবলমাত্র দূর-শিক্ষণ চালু ছিল। বর্তমানে সংক্রমণ কমে আসায় শিক্ষার্থীদের পর্যায়ক্রমে স্কুলে এসে পাঠ গ্রহণের সুযোগ দিচ্ছে ফোর্ড সরকার। ডারহাম ও হলটনসহ আরও ১৩টি জনস্বাস্থ্য ইউনিটের অধীন স্কুল খুলে দেওয়া হয়েছে। ১৬ ফেব্রুয়ারি খোলার কথা রয়েছে টরন্টো, ইয়র্ক ও পিল রিজিয়নের স্কুলগুলো।

এ অবস্থায় অন্টারিও জনস্বাস্থ্য বিভাগের চিফ মেডিকেল অফিসার ডা. ডেভিড উইলিয়ামস ও অন্য জনস্বাস্থ্য কর্মকর্তাদের পরামর্শক্রমে সরকার মার্চ ব্রেক পিছিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্তটি নিয়েছে বলে জানান স্টিফেন ল্যাচে । 

এ অবস্থায় অন্টারিও জনস্বাস্থ্য বিভাগের চিফ মেডিকেল অফিসার ডা. ডেভিড উইলিয়ামস ও অন্য জনস্বাস্থ্য কর্মকর্তাদের পরামর্শক্রমে সরকার মার্চ ব্রেক পিছিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্তটি নিয়েছে বলে জানান স্টিফেন লিসি। কেবল সরকারি স্কুলগুলোর ওপরই সরকার নিয়ন্ত্রণ থাকলেও সব স্কুলকে এ সিদ্ধান্ত মেনে চলার আহ্বান জানানো হয়েছে। 

অন্যান্য বছরের মতো এ বছরও মার্চ ব্রেক চালু রাখার দাবি জানিয়েছিলেন টিচার্স ইউনিয়ন। এ ব্যাপারে তাদেরও পরামর্শ নেওয়া হয়েছে বলে জানান স্টিফেন ল্যাচে । তিনি বলেন, তবে প্রদেশের স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা মার্চ ব্রেক পিছিয়ে দেওয়াকেই সবচেয়ে ভালো উপায় বলে মনে করেছেন এবং সে অনুযায়ী সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। 

তবে সিদ্ধান্তের নিন্দা জানিয়েছে এলিমেন্টারি টিচার্স’ ইউনিয়ন অব অন্টারিও, দ্য অন্টারিও সেকেন্ডারি স্কুল টিচার্স’ ফেডারেশন, দ্য অন্টারিও ইংলিশ ক্যাথোলিক টিচার্স’ অ্যাসোসিয়েশন ও অ্যাসোসিয়েশ দ্য এনসেইনান্তেস এট দ্য এনসেনান্তে ফ্রাঙ্কো-অন্তারিয়েন্স। যৌথ বিবৃতিতে সংগঠনগুলো বলেছে, এটা একটা অস্বাভাবিক সময় এবং শিক্ষক-শিক্ষার্থী, শিক্ষাকর্মী ও মহামারির কারণে চাপে থাকা পরিবারগুলোর অবশ্যই ছুটি দরকার। মার্চ ব্রেক স্থগিত করার ক্ষেত্রে এসব মানুষের মানসিক স্বাস্থ্য ও কল্যাণের বিষয়টি বিবেচনায় নেয়নি সরকার।

একই রকম বক্তব্য দিয়েছেন এনডিপি নেতা আন্দ্রিয়া হরওয়ার্থ। এ সিদ্ধান্তের সমালোচনা করে তিনি বলেছেন, সবাইকে নিরাপদ স্প্রিং ব্রেক দেওয়ার একটা উপায় আমাদের খুঁজে বের করতেই হবে। সমস্যাকে পাশ কাটিয়ে যাওয়া কোনো সমাধান হতে পারে না।

 

 

 

Comments